মেহজাবিনের ‘কান পেতে রই’

মেহজাবিনের ‘কান পেতে রই’ 0 comments

রঙিন ডেস্ক : এক ফ্রেমে বন্দি হলেন জনপ্রিয় চিত্রনায়ক রিয়াজ ও দর্শকপ্রিয় মডেল-অভিনেত্রী মেহজাবিন। ‘কান পেতে রই’ শীর্ষক একটি খ- নাটকে অভিনয় করেছেন তারা। এর চিত্রনাট্য ও পরিচালনা করেছেন মাতিয়া বানু শুকু। গতকাল রাজধানীর উত্তরার একটি শুটিং হাউজে নাটকটির দৃশ্য ধারণের কাজ শেষ হয়েছে।

48515_e8‘কান পেতে রই’ নাটকে দেখা যাবে- জারা প্রতিবন্ধী একজন মেয়ে। কিন্তু তার মেধা তার কাজের ক্ষেত্রে বাধা হয়ে দাঁড়ায় না। জারা একটি রেডিওতে আরজে হিসেবে কাজ করেন। অন্যদিকে ফারহান দেশে ফেরা একজন যুবক। যার একসময় বিদেশি এক মেয়ের সঙ্গে সম্পর্ক ছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তাদের বিয়ে হয়নি। দেশে ফিরে জারার কণ্ঠ শুনে ফারহানের ভালো লেগে যায়। প্রতিবন্ধী জারার পাশে দাঁড়াতে চায় ফারহান। কিন্তু জারা তাকে এড়িয়ে চলে। তাতে তার ব্যক্তিত্বে মুগ্ধ হয়ে আরও দুর্বল হয়ে পড়ে ফারহান। এভাবেই নাটকের গল্প এগিয়ে যাবে।

এ প্রসঙ্গে রিয়াজ বলেন, ‘শুকু আপার নির্দেশনায় এবারই প্রথম কাজ করেছি। বেশ গোছানো কাজ। স্ক্রিপ্টতো এক কথায় অসাধারণ। অনেকদিন পর রোমান্টিক গল্পে কাজ করেছি। খুব ভালো লেগেছে কাজটি করে। মেহজাবিন অভিনয়ে আগের চেয়ে এখন অনেক দক্ষ হয়েছেন। যে কারণে আমরা দুজনই কাজটি বেশ উপভোগ করেছি।’

RIA_8701মেহজাবিন বলেন, ‘রিয়াজ ভাই অনেক মেধাবী এবং উঁচু মাপের একজন অভিনতো। কিন্তু কাজ করার সময় তিনি এতটাই সহযোগিতাপরায়ণ ছিলেন যে আমাকে বুঝতেই দেননি তিনি যে, আমি তার মতো একজন শিল্পীর সঙ্গে অভিনয় করছি। শুকু আপার স্ক্রিপ্টে এর আগে কাজ করেছি। কিন্তু নির্দেশনায় এবারই প্রথম। বেশ যত্ন নিয়ে ধরে ধরে কাজ করেন তিনি। যে কারণে শিল্পী হিসেবেও কাজের প্রতি মনোযোগ এবং মায়া থাকে। আমি খুব আশাবাদী কাজটি নিয়ে।’

আসছে ১৯ জানুয়ারি রাত ১০.৫৫ মিনিটে এটিএন বাংলায় নাটকটি প্রচার হবে। তবে গত বছরই প্রথম একসঙ্গে একটি নাটকে অভিনয় করেছিলেন রিয়াজ ও মেহজাবিন। কৌশিক শংকর দাশের নির্দেশনায় ‘এক যে ছিলো রাজকন্যা’ নাটকে তারা দুজন প্রথম অভিনয় করলেও তা এখনো প্রচার হয়নি। তবে নির্মাতা কৌশিক জানান তার নাটকটি অচিরেই চ্যানেল আইতে প্রচার হবে। তাই প্রচারের দিক দিয়ে রিয়াজ ও মেহজাবিনের ‘কান পেতে রই’ হবে প্রথম নাটক।

টিএইচ/এএইচ

No Comments so far

Jump into a conversation

No Comments Yet!

You can be the one to start a conversation.

Your data will be safe!Your e-mail address will not be published. Also other data will not be shared with third person.