চট্টগ্রাম টেস্টে দ্বিতীয় দিন অস্ট্রেলিয়ার

সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৭ ০ comments

রঙিন ডেস্ক : দ্বিতীয় দিনটা পুরোপুরি নিজেদের নিয়ন্ত্রণে রেখে খেলা শেষ করলো অস্ট্রেলিয়া। শুরুতে উইকেট হারিয়েও শেষ পর্যন্ত দিন শেষে শক্ত অবস্থানেই রয়েছে অস্ট্রেলিয়া। এখন দেখার বিষয় কাল লিড নিতে পারে নাকি বাংলাদেশের বোলারদের ভেলকিতে অলআউট হয়। তবে ওয়ার্নার আর পিটার হ্যান্ডসকমের ব্যাটিং দৃঢ়তায় বাংলাদেশ এখন ব্যাকফুটে।

দেখা পেয়ে যেতে পারেন ওয়ার্নার আরেকটি সেঞ্চুরির। দিন শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ২ উইকেটে ২২৫ রান। এখনও বাংলাদেশের চেয়ে ৮০ রানে পিছিয়ে আছে। ওয়ার্নার করেছেন ৮৮ এবং হ্যান্ডসকম ৬৯ রানে অপরাজিত আছেন।

এর আগে শুরুতে এক উইকেট হারালেও অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথের সঙ্গে জুটি বেধে এগিয়ে যাচ্ছিলেন ওয়ার্নার। বাংলাদেশের জন্য ভয়ঙ্কর হয়ে উঠা এ জুটি ভেঙ্গে ব্রেক-থ্রু এনে দিলেন তাইজুল।

স্টিভেন স্মিথ বোল্ড হওয়ার আগে ৯৪ বলে করেন ৫৮ রান। এর মধ্যে ছিলো আটিটি চারের মার।

এর আগে অস্ট্রেলিয়া ইনিংসের শুরুতে দলীয় ১৫ রানে রেনশ’কে আউট করেন মোস্তাফিজুর রহমান। রেনশ’ ৪ রানে মুশফিককে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বাংলাদেশ ৩০৫ রানে অলআউট হয়ে যায়। প্রথম দিনে ৬ উইকেটে ২৫৩ রান নিয়ে শেষ করে বাংলাদেশ। আজ সোমবার দ্বিতীয় দিনে ব্যাট করতে নামে মুশফিক-নাসির।

প্রথম দিন থেকে সতর্কভাবে খেলে দলকে টেনে তোলা অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম আজ দিনের শুরুতেই বিদায় নেন। নাসিরকে সঙ্গে নিয়ে সতর্ক হয়েই খেলছিলেন মুশফিক। কিন্তু অস্ট্রেলিয়ার স্পিনার নাথান লায়ন তাকে বোল্ড করে সাজঘরে পাঠান। মুশফিক বোল্ড হওয়ার আগে ১৬৬ বল থেকে করেন ৬২ রান। এর মধ্যে ৫টি চারের মার।

মুশফিকের আউটের পর দারুণ খেলছিলেন নাসির হোসেন। কিন্তু অর্ধশতক থেকে পাঁচ রান দূরে থাকতে ফিরে যান তিনি। এরপর মিরাজ-তাইজুলরা লড়াই করার চেষ্টা করলেও শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশের প্রথম ইনিংস থামে ৩০৫ রানে।

আরপি/ এএইচ

No Comments so far

Jump into a conversation

No Comments Yet!

You can be the one to start a conversation.

<