‘গেন্দা ফুল’ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার ঝড়

‘গেন্দা ফুল’ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার ঝড় মার্চ ২৯, ২০২০ ০ comments
jac

ছবি- সংগৃহীত

রঙিন ডেস্ক: সোশ্যাল মিডিয়া খুললেই র‌্যাপার বাদশার সঙ্গে পায়েল দেব এর গাওয়া ‘বড়োলোকের বিটি লো’ গানটি শুনে কান ঝালাপালা হওয়ার জোগাড়। গানের নাম দেয়া হয়েছে ‘গেন্দা ফুল’। বাংলা গানের সঙ্গে পাঞ্জাবি ঢুকিয়ে নতুন করে গানটি কম্পোজ করা হয়েছে। গানের মিউজিক ভিডিওতে কোমর দোলাতে দেখা গিয়েছে বলিউড অভিনেত্রী জ্যাকুলিন ফার্নান্ডেজকে। আর বাদশা ও পায়েল দেবের গাওয়া এই গান নিয়েই সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার ঝড়।

ছবি- সংগৃহীত

ছবি- সংগৃহীত

সমস্যা র‌্যাপার বাদশা ও পায়েল দেবের গান গাওয়া নিয়ে নয়, গানের মূল উৎসের কথা স্বীকার না করা নিয়ে। ইউটিউবে একটু ভালো করে খেয়াল করলেই দেখা যাবে গানের বিবরণীতে গানের কথায় (Lyrics) বাদশার নাম লেখা। কোথাও বহু পুরনো এবং জনপ্রিয় বাংলা গানের উৎসের কথা স্বীকার করা হয়নি। আর তা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্ষোভ উগড়ে দিয়েছেন অনেকেই। অভিযোগ, এমন কালজয়ী গানের যিনি স্রষ্টা, সেই শিল্পী অনেকের অবহেলার মধ্যে বিস্মৃতই রয়ে গেলেন। আর তার গান নিয়ে যা খুশি তাই করে ব্যবসা করে চলেছে অনেকে। অথচ সেই রতন কাহার তার প্রকৃত সম্মান পেলেন না।

আরো পড়ুন: হইচইয়ে ‘একাত্তর’

কেউ লিখেছেন লিখেছেন, বাংলা লোকসঙ্গীতকে যেভাবে ব্যবহার করা হয়েছে তা তার মোটেও ভালো লাগেনি। কেউ আবার গানটি যিনি লিখেছিলেন তার প্রতি কৃতজ্ঞতা না প্রকাশের জন্য ক্ষোভ উগড়ে দিয়েছেন। অসাধারণ এমন একটি লোকগীতি সৃষ্টির মূলে যিনি রয়েছেন, সেই রতন কাহারের কথা এবং গানটি তৈরির মূলে যে গল্প রয়েছে তার সবটাই উঠে এসেছে সোশ্যাল মিডিয়ার পাতায়।

‘বড়োলোকের বিটি লো’ গানটির যিনি প্রকৃত স্রষ্টা সেই রাঢ় বাংলার শিল্পী রতন কাহারের একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত পরিচালক প্রদীপ্ত ভট্টাচার্য। সোশ্যাল মিডিয়ায় বিশেষ কিছু না লিখলেও পরিচালকের শেয়ার করা এই ভিডিওটিই অনেক কথা বলে দেয়।

যদিও ‘গেন্দা ফুল’ নামের এই মিউজিক ভিডিওটি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া তোলপাড় হওয়ার পরে অরিজিনাল মিউজিক হিসেবে বাংলা লোকসঙ্গীতের কথা উল্লেখ করা হয়। কিন্তু কোথাও লেখা নেই রতন কাহারের নাম। সূত্র: জি-নিউজ

এসএল/এএইচ

No Comments so far

Jump into a conversation

No Comments Yet!

You can be the one to start a conversation.

<